জার্নাল ডেস্ক
8 June 2021
  • No Comments

    ময়মনসিংহে কোচিং সেন্টারের জরিমানা গুণলেন শিক্ষক

    ইলিয়াস আহমেদ,ময়মনসিংহ:

    করোনার বিধি নিষেধ অমান্য করে ময়মনসিংহে কোচিং সেন্টার খোলা রাখায় হোসেন আলী নামে এক শিক্ষককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমান আদালত। মঙ্গলবার (৮ জুন) বিকাল ৫ টার দিকে নগরীর নতুন বাজার সাহেব আলী রোড এলাকায় প্রতিষ্ঠিত হোসাইন স্যারের বিজ্ঞান ও প্রাইভেট কোচিং সেন্টারকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. এরশাদ।
    এ সময় কোতোয়ালী মডেল থানার পুলিশ ও শিক্ষার্থীদের অভিভাবক উপস্থিত ছিলেন।

    নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন শিক্ষার্থী বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও করোনার শুরু থেকে এই কোচিং সেন্টারে নিয়মিত কোচিং করে যাচ্ছি। সরকারী নিষেধাক্কা থাকার পরেও কেন কোচিং করতে হয় জানতে চাইলে তারা বলেন, কোচিং সেন্টার খোলা না থাকলে আমরা কি কোচিং করার সুযোগ পেতাম। সব সময় স্যার আমাদেরকে কোচিং এ আসতে উৎসাহিত করেছে, পিছিয়ে পরার চিন্তায় করোনার রিস্ক নিয়ে আসতে বাধ্য হয়েছি।

    সরকারের নির্দেশ অমান্য করে করোনা মহামারিতে কোচিং খোলা রেখে শিক্ষার্থীদের ঝুঁকির মধ্যে ফেলার মতো কাজ করার ঘটনার নিন্দা জানিয়ে সকল কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার দাবি জানিয়েছেন সৃজনশীল বিজ্ঞান অঙ্গনের পরিচালক ওয়ালিউর রহমান নাঈম।

    জেলা শিক্ষা অফিসার রফিকুল ইসলাম বলেন, সরকারের নিষেধাজ্ঞার পর থেকেই শহরের সকল কোচিং সেন্টারে নিয়মিত তদারকি করা হচ্ছিল। কিছু কিছু শিক্ষকের জন্য সরকারের নির্দেশনা প্রশ্নের সম্মুখীন হয়। তবে এবার কাউকে সুযোগ দেয়া হবে না। কোচিং সেন্টার খুললেই শাস্তি জরিমানা পেতে হবে।

    এ বিষয়ে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আয়েশা হক বলেন, সরকারী বিধি নিষেধ অমান্য করে হোসাইনের পরিচালিত বিজ্ঞান ও প্রাইভেট কোচিং প্রোগামকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে এবং সরকারী নির্দেশনা না আসা পর্যন্ত কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এ অভিযান চলমান থাকবে বলেও জানান তিনি।

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *