ময়মনসিংহে অপারেশন থিয়েটারে তরুণীকে ধর্ষণের চেষ্টা

প্রকাশিত: ৭:১৩ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৯, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক
ময়মনসিংহ নগরীর ব্রাহ্মপল্লী এলাকায় পদ্মা জেনারেল প্রাইভেট হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের অপরেশন থিয়েটারে গারো সম্প্রদায়ের এক তরুণীকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
রোববার (১৮ আগস্ট) রাতে এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ওই তরুণী বাদী হয়ে কোতোয়ালী মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন।
থানা পুলিশ সূত্র জানায়, ওই মামলায় হাসপাতালের ম্যানেজার সোহেল রানা আলম ও মালিক মজিবর রহমান বাবুলের নাম মামলায় উল্লেখ করা হয়। এ ঘটনায় হাসপাতালটির মালিক মজিবর রহমান বাবুলকে আটক করেছে পুলিশ।
সোমবার সকালে কোতোয়ালী মডেল থানার ওসি মাহমুদুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, নার্স পদে চাকরি দেওয়ার কথা বলে রোববার বিকেলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ পাঁচ গারো তরুণীকে ডেকে নিয়ে যায়। তাদের সঙ্গে কথা বলার এক পর্যায়ে এক তরুণীকে অপারেশন থিয়েটার দেখানোর কথা বলে দু’তলার একটি কক্ষে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় ম্যানেজার সোহেল রানা আলম। এ সময়ঢ বিষয়টি টের পেয়ে অন্য চার তরুণী সেখানে গিয়ে মেয়েটিকে উদ্ধার করে। পরে বিষয়টি মীমাংসার চেষ্টা চালায় হাসপাতাল মালিক মজিবুর রহমান বাবুল। এরই মধ্যে পালিয়ে যায় ধর্ষণ চেষ্টাকারী সোহেল রানা আলম। অভিযোগ পাওয়ার পর রাতে ওই হাসপাতালে অভিযান চালিয়ে মালিক মজিবুর রহমান বাবুলকে আটক করে পুলিশ। ওসি বলেন, প্রাথমিক তদন্তে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় মূল আসামিকে পালিয়ে যেতে সহায়তা করায় হাসপাতালের মালিককে আটক করা হয়েছে। মূল আসামিকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।