ঈশ্বরগঞ্জে ভ্রাম্যমান আদালতের সাক্ষী হওয়ায় বালু সন্ত্রাসীদের হামলায় যুবক আহত

প্রকাশিত: ৭:৫০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০

নিজস্ব প্রতিবেদক:

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগজ্ঞ উপজেলার মরিচার চর বটতলায় অবৈধ বালু উত্তোলনের অভিযোগে পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালতে সাক্ষী হওয়ায় আল মামুন(২২) নামের এক যুবককে মারপিট করে মারাত্মক আহত করেছে সংশ্লিষ্ট বালু সন্ত্রাসীরা। এ ঘটনায় বালু সন্ত্রাসীদের ভয়ে ভুক্তভোগী পরিবারে আতঙ্ক বিরাজ করছে।
মঙ্গলবার রাতে এ হামলা-মারপিটের ঘটনা ঘটে। পরে আহত যুবককে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাঈদা পারভীন। তিনি জানান, গত ১৫সেপ্টেম্বর অবৈধ বালু উত্তোলন ও ইজারা আদায়ের অভিযোগে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ওই বালূ মহালের ৪ জনকে জেল দেয়া হয়েছে। তিনি আরো বলেন, ওই আদালতে স্বাক্ষ্য দেওয়ায় এক যুবককে মারপিট করা হয়েছে বলে শুনেছি। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী পরিবারকে মামলা দায়ের করতে বলা হয়েছে।
আহত আল মামুন জানায়, পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে বালু সন্ত্রাসীরা আমার উপর স্বশস্ত্র হামলা চালিয়ে ব্যাপক মারপিট করে আহত করেছে। এ সময় তারা আমার কাছ থেকে নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়।
স্থানীয়রা জানায়, র্দীঘদিন ধরে স্থানীয় একটি প্রভাবশালী সিন্ডিকেটের মদদে বটতলায় অবৈধ ভাবে বালু তোলে ভুয়া ইজারা রশিদে বিক্রি করছে একদল বালু সন্ত্রাসী। ঘটনাটি অবহিত হয়ে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাঈদা পারভীন সরেজমিনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সংশ্লিষ্টদের অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধে নিষেধাজ্ঞা জারী করেন সংশ্লিষ্টদের কাছ থেকে লিখিত মুচলেকা গ্রহন করেন। কিন্তু বিগত কিছুদিন যাবত ওই মহলটি প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে অবৈধ বালু উত্তোলন করে আসছে।
উপজেলা সহকারী কমিশনার সূত্র জানায়, এর আগে ওই বালু মহালে অবৈধ ভাবে উত্তোলন করা বালু জব্দ করে নিলাম করা হলেও উচ্চ আদালতে পাল্টাপাল্টি রিট পিটিশনের কারণে নিলাম কার্যক্রম স্থগিত রাখা হয়।