জার্নাল ডেস্ক
8 June 2020
  • No Comments

    গফরগাঁও সেপটিক ট্যাংকের বিষাক্ত গ্যাসে দুইজনের মৃত্যু

    ইলিয়াস আহম্মেদ:
    ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলার একটি বাড়ির শৌচাগারের সেপটিক ট্যাংকে নেমে গৃহকর্তার ছেলে ও এক নির্মাণ শ্রমিক মারা গেছেন; অসুস্থ হয়েছেন আরও চারজন।

    রোববার উপজেলার পাগলা থানার নিগুয়ারী ইউনিয়নের কুরচাই গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

    মৃত দুজন হলেন কুরচাই গ্রামের মান্নান সরকারের ছেলে হুমায়ূন কবীর (৩৩) ও সিরাজ উদ্দিনের ছেলে মো. হিমেল (২৫)।

    প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে পাগলা থানার ওসি শাহিনুজ্জামান খান বলেন, কুরচাই গ্রামের আব্দুল মান্নান সরকারের বাড়িতে দুপুর ২টার দিকে নির্মাণাধীন সেপটিক ট্যাংকের ঢালাইয়ের মুখ খুলে শ্রমিক মুর্শিদ ট্যাংকের ভেতরে নামলে ‘বিষাক্ত গ্যাসে’ আক্রান্ত হন।

    “মুর্শিদকে বাঁচাতে গৃহকর্তার ছেলে হুমায়ূন ও আরেক শ্রমিক হিমেল সেপটিক ট্যাংকে নামেন এবং তাদের চিৎকারে একে একে নামেন মাজহারুল, আলতাব ও শরীফ।”

    ওসি বলেন, পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে হুমায়ূন ও হিমেলের মৃত্যু হয়।

    ‘বিষাক্ত গ্যাসে’ অসুস্থদের ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে বলে ওসি জানান।

    দুইজনের মরদেহ ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানান ওসি শাহিনুজ্জামান খান।

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *