জার্নাল ডেস্ক
28 April 2020
  • No Comments

    ময়মনসিংহে স্ত্রীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা পালিয়েছে স্বামী

    ইলিয়াস আহম্মেদ:
    ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে পারিবারিক কলহের জেরে স্ত্রীকে ছুরি মেরে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। ঘটনার পর থেকেই স্বামী এমদাদুল হক পলাতক রয়েছেন বলে জানিয়েছেন ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি মোখলেছুর রহমান। তিনি বলেন, মঙ্গলবার সকালে উপজেলার দত্ত গ্রামে পারিবারিক কলহের জেরে এমদাদুল হক তার স্ত্রী লাকী আক্তারকে (২৩) বুকে ছুরি মেরে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এমদাদুল হককে আটকের চেষ্টা চলছে বলেও জানান মোখলেছুর রহমান। নিহতের বাবা শাহেদ আলী জানান, প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে প্রায় ৫ বছর পূর্বে তার মেয়ে লাকিকে বিয়ে করে ভাতিজা এমদাদুল হক (২৬)। এমদাদ দত্ত গ্রামের আহাম্মদ আলীর ছেলে। সে ঢাকায় গার্মেন্ট শ্রমিক হিসেবে কাজ করতো। লাকি ও এমদাদের সংসারে গত দুই বছর পূর্বে মাঈশা আক্তার নামে কন্যা সন্তান জন্ম নেয়। চাচা ভাইয়ের সাথে বিয়ে হলেও নানা বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে কলহ লেগে থাকতো। কলহের জের ধরে গত ৫ মাস পূর্বে লাকি নিজের স্বামীকে একতরফা ভাবে ডিভোর্স দেন। পরে চলে যান ঢাকায়। সেখানে একটি পোশাক কারখানায় কাজ নেন লাকি। মঙ্গলবার সকাল ৮ টার দিকে বাড়িতে ফেরেন লাকি। নিজেদের ঘরে সন্তানকে খাবার খাওয়ানোর সময় এমদাদ এসে লাকির বুকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় লাকির। মেয়ে হত্যার বিচারচান তিনি।

    Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *